Skip to main content

কোকা-কোলা

কোকা-কোলা (ইংরেজি: Coca-Cola) হচ্ছে এক প্রকার কার্বোনেটেড কোমল পানীয়। বিশ্বব্যাপী বিভিন্ন রেস্তোরাঁ, জেনারেল বা ডিপার্টমেন্টাল স্টোর, ভেন্ডিং মেশিনসহ বিভিন্ন স্থানে কোকা-কোলা বিক্রি হয়। দ্য কোকা-কোলা কোম্পানির দাবি অনুসারে বিশ্বের ২০০টিরও বেশি দেশে কোকা-কোলা বিক্রি হয়।[১]যুক্তরাষ্ট্রের জর্জিয়া অঙ্গরাজ্যের আটলান্টা শহরে অবস্থিত দ্য কোকা-কোলা কোম্পানি এই পানীয় উৎপাদন করে থাকে। কোকা-কোলা সংক্ষেপে কোক(Coke) নামে পরিচিত। যুক্তরাষ্ট্রে এটি ১৯৪৪ সালের ২৭ মার্চ থেকে দ্য কোকা-কোলা কোম্পানির রেজিস্টার্ড ট্রেডমার্ক। এছাড়া এটি ইউরোপ-আমেরিকায় কোলা ও পপ নামেও পরিচিত।[২]কোকা-কোলার উৎপত্তি হয়েছিলো একটি ওষুধ হিসেবে। উনিশ শতকে জন পেম্বারটন নামক একজন রসায়নবিদ কোকা-কোলার ফর্মুলা আবিস্কার করেন। ব্যবসায় কোকা-কোলাকে পরিবেশন ও বিপণন করেন ব্যবসায়ী আসা গ্রিগস ক্যান্ডেলার। তাঁর বাজারজাতকরণ কৌশলেই বিশ শতক থেকে কোকা-কোলা বিশ্বের কোমল পানীয়র বাজারে একটি প্রভাবশালী ও শক্তিশালী প্রতিদ্বন্দী হিসেবে চিহ্নিত।
Source: Wikipedia

Popular posts from this blog

Notice

20/01/2017
“বিসমিল্লাহির রাহমানির রাহিম”
জনাব,
আসসালামুআলাইকুম,
আসছে আগামী ২৩-০১-১৭ ইং তারিখ রোজ
শুক্রবার ০৪.০০ ঘটিকায়
সিটপাড়া পাবলিক স্কুল মাঠ
প্রাঙ্গনে সিটপাড়া এডুকেশন সোসাইটির
উদ্যোগে এক আলোচনা ও মতবিনিময়
সভার আয়োজন করা হইয়াছে।
উক্ত সভায় আপনার/আপনাদের
উপস্থিতি একান্তভাবে কাম্য।
ভিজিট করুন : www.sedusociety.tk

#Update_1

এখন আমরা ফেসবুকের গ্রুপ ছাড়াও গুগল সার্চেও ছড়িয়ে পড়েছি। মূলত আমাদের অফিসিয়াল ওয়েবসাইটটি Launch করার পর থেকে আমরা এই গৌরব অর্জন করেছি। আশা করি এখন থেকে আমাদের সদস্যগণের আমাদের ফেসবুকের লোকেশন পেতে কোনো সমস্যা হবে না। তাছাড়া আমাদের ক্লাবের সর্বশেষ আপডেট পেতে আমাদের অফিসিয়াল ওয়েবসাইটে চোখ রাখুন☺

Society Rules

১।
সকল সদস্যের অক্ষরজ্ঞান সম্পন্ন হতে হবে।
২।
প্রত্যেক সভায় সদস্যদের উপস্থিত থাকতে হবে।
৩।
সোসাইটি কেন্দ্রীক সকল সমস্যা আলোচনার মাধ্যমে সমাধান করতে হবে।
৪।
ঐক্যবদ্ধভাবে এলাকার উন্নয়নমূলক কাজে অংশগ্রহন করতে হবে।
৫।
নিজের স্বার্থের চাইতে সোসাইটির স্বার্থকে বেশী মূল্যায়ন করতে হবে।
৬।
সোসাইটি পরিপন্থি কোন কথা বা কাজে জড়ানো যাবে না।
৭। পরপর ৩ দিন সভায় অনুপস্থিত থাকলে সভাপতির কাছে জবাবদিহিতা করতে হবে।বিঃদ্রঃসোসাইটির প্রয়োজনে যেকোন নিয়ম বা সময় পরিবর্তিত হতে পারে।